বিজ্ঞান পড়ার প্রতি উৎসাহ দিয়ে ছােটো ভাইকে একটি পত্র লেখ।

বিজ্ঞান পড়ার প্রতি উৎসাহ দিয়ে ছােটো ভাইকে একটি পত্র লেখ

রূপসা, খুলনা।

৭ই জানুয়ারি ২০১৯

স্নেহের ধীমান

আমার আদর ভালােবাসা নিস। গতকাল তাের চিঠি পেয়েছি। জেএসসি পরীক্ষায় জিপিএ- পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছিস জেনে খুব খুশি হয়েছি। তাের এই কৃতিত্বের জন্য আমার আন্তরিক অভিনন্দন আশীর্বাদ রইল। আমার দৃঢ় বিশ্বাস, ভবিষ্যতেও তুই রকম কৃতিত্বের ধারা বজায় রাখবি।

অতঃপর বিশেষ সংবাদ হলাে তুই কোন বিভাগ নিয়ে পড়বি বিজ্ঞান না বাণিজ্য নাকি মানবিক সে সম্পর্কে আমার পরামর্শ। চেয়েছিস। আসল কথা কী শান, যে বিভাগে পড়তে তুই স্বাচ্ছন্দ্যবােধ করিস সেটি পড়াই উত্তম। তারপরও আমি আমার অভিমত জানাচ্ছি। তুই তাে জানিস, আমি বাণিজ্য বিভাগে লেখাপড়া করেছি। সুতরাং তুই অবশ্যই বিজ্ঞান নিয়ে লেখাপড়া কর এটি আমার একান্ত ইচ্ছা। আর ইচ্ছার পেছনে আরেকটা বৃহৎ কারণও রয়েছে, সেটি হলাে তােকে আমি উচ্চশিক্ষার্থে কম্পিউটার সায়েন্স পড়াব বলে আশা রাখি। বর্তমান যুগকে কম্পিউটার বিজ্ঞানের যুগ বলা হয়। স্কুল-কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়, অফিস-আদালত, ব্যাংকবিমা, ব্যবসায়-বাণিজ্য, হাসপাতাল-ক্লিনিক, আনন্দ-বিনােদন সর্বত্রই এখন কম্পিউটারের ছড়াছড়ি। এমন দিন খুব বেশি দূরে নয়, যেদিন কম্পিউটার ছাড়া আমাদের একটি মুহূর্তও আর চলবে না। আজকাল উন্নত বিশ্বের দিকে তাকালে সহজেই কম্পিউটারের প্রয়ােজনীয়তা উপলব্ধি করা যায়। বস্তুত জন্যই আমার একান্ত ইচ্ছা তুই বিজ্ঞান বিভাগ নিয়েই লেখাপড়া কর। শুধু তাই নয় এখন থেকেই তুই তাের অবসর সময়ে বিভিন্ন ধরনের বিজ্ঞান সাময়িকী বিজ্ঞান বই যতদূর সম্ভব পড়তে শুরু কর। এতে করে তুই যেমন বিজ্ঞান-বিষয়ক জ্ঞান অর্জন করতে পারবি তেমনই তােকে তা বিজ্ঞানমনস্ক হওয়ার ক্ষেত্রেও সাহায্য করবে।

আমি আমার পরামর্শ দিলাম, এখন সিদ্ধান্ত তাের। তবে সর্বোপরি কথা হলাে যে বিভাগেই পড়িস না কেন আগে তােকে প্রকৃত মানুষ হতে হবে। কেননা মনুষ্যত্ব অর্জন ব্যতীত সব জ্ঞানই বৃথা। ব্যাপারে কী মনস্থির করিস আমাকে জানাস। প্রয়ােজনে বাবামার পরামর্শও নিতে পারিস। ভালাে থাকিস। বাবা-মাকে আমার প্রণাম দিস।

ইতি

তাের দাদা।

সুনন্দ

[পত্র লেখা শেষে খাম একে খামের ওপরে ঠিকানা লিখতে হয়)


Share This Post

Post Comments (0)



Latest Post

Suggestion or Complain

সংবাদ শিরোনাম